সারাদেশ

গোয়ালন্দে পদ্মায় ভয়াবহ ভাঙন, নদীগর্ভে ১৬টি বসতবাড়ি

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়া ইউনিয়ন এলাকায় হঠাৎ করে পদ্মা ভয়াবহ ভাঙন শুরু হয়েছে। দৌলতদিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের মজিদ শেখের পাড়ায় আজ মঙ্গলবার সাড়ে ১০টার দিকে এ ভাঙন শুরু হয়ে। দুই ঘন্টার ভাঙনে পদ্মা নদীতে বিলীন হয়েছে ১৫০ মিটার এলাকায় ১৬টি বসতবাড়ি।

স্থানীয়রা অভিযোগ করে বলেন, বিআইডাব্লিউটিএ ও পানি উন্নয়ন বোর্ডের অব্যবস্থাপনার কারণে ১০ মিনিটের ভাঙনে ১৬টি বাড়ী পদ্মায় বিলীন হয়েছে। পদ্মাপারের আরও শত শত স্থাপনা হুমকির মধ্যে রয়েছে।

পদ্মায় নদীগর্ভে ক্ষতিগ্রস্থ বিলাস ব্যাপারী বলেন, আশা ছিলো কর্তৃপক্ষ জিও ব্যাগ ফেলবে। কিন্তু তারা বড় বড় বস্তা ফেললেও কিন্তু কোন কাজে আসেনি। আমার সবকিছু নদীতে চলে গিয়েছে। আমাদের এখন খোলা আকাশের নিচে বাস করতে হবে।
স্থানীয়র দৌলতদিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ২নং ওয়ার্ডের সদস্য মো. আশরাফুল ইসলাম বলেন, ‘পদ্মায় ১৬টি বাড়ি বিলীন হয়েছে। ভাঙন পারের ৪০টি মতো বাড়ি ভেঙ্গে অন্যত্র সরিয়ে নিয়েছে। লঞ্চঘাট হুমকির মধ্যে রয়েছে। যেকোন সময় লঞ্চঘাটও ক্ষতিগ্রস্থ হতে পারে।’

গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আজিজুল হক মামুন বলেন, ‘হুট করে পদ্মায় নদীর লঞ্চঘাট এলাকায় ভাঙন শুরু হয়। ভাঙনে বেশ কয়েকটি পরিবার ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। রাজবাড়ী জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা পরিদর্শন করেছেন। ক্ষতিগ্রস্থদের জরুরী ভিত্তিতে খাদ্য সহায়তা প্রদান করা হবে। ঘর নির্মাণেরও উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে।’

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button